×

Error

Cannot get "Dhaka" woeid in module "mod_sp_weather".

Cannot retrive forecast data in module "mod_sp_weather".

এখন কেমন ফেসপ্যাক

এখন কেমন ফেসপ্যাক

বাতাসের হিম ছোঁয়ায় প্রকৃতির সঙ্গে ত্বকও হয়ে পড়ে প্রাণহীন নির্জীব। ধুলাবালু, শুষ্ক বাতাস, কখনো মাথার ওপরের কড়া রোদ ত্বককে করে তোলে প্রাণহীন ও মলিন। অতিরিক্ত রুক্ষতা থেকে বাঁচতে এ সময় ত্বকের চাই বিশেষ যত্ন। বাড়িতে নিয়মিত যত্ন তো চাই-ই; পারলারে মাসে অন্তত একবার ফেসিয়াল করান অনেকে। তবে এই আবহাওয়ায় কোন ধরনের ফেসিয়াল উপযুক্ত হবে ত্বকের জন্য, তা বোঝেন না কেউ কেউ। আবার বাড়িতেও কেমন ফেসপ্যাক ব্যবহার করা চাই, তা জেনে রাখা ভালো। কোনো কোনো উপাদান এই আবহাওয়ায় ত্বকের শুষ্কতা আরও বাড়িয়ে দিতে পারে। গরমের সময় যেসব উপকরণ দিব্যি ব্যবহার করতেন, তা হয়তো এই সময় উপযোগী না-ও হতে পারে।
ফেসিয়ালের মূল কাজ হলো ভালো করে ত্বক পরিষ্কার করা এবং আর্দ্রতা জোগানো, জানালেন রূপ বিশেষজ্ঞ রাহিমা সুলতানা। শুষ্ক আবহাওয়ায় ত্বকের লোমকূপগুলো বন্ধ হয়ে যায়। এ কারণে ত্বকে খসখসে অমসৃণ একটা ভাব চলে আসে, হাত-পা ফেটে যায়। তাই শীতে ত্বকের যত্নে ফেসিয়াল করা অনেক বেশি প্রয়োজন হয়ে পড়ে। ফেসিয়ালে ম্যাসাজ করার ফলে ত্বকের রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি পায়। তাই ত্বকে বয়েসের ছাপ পড়ে না সহজে। এর ফলে মরা কোষ উঠে যায়, ব্ল্যাক হেডস দূর হয়, ত্বকের গভীর থেকে ময়লা পরিষ্কার করে প্রাণহীন মলিন ত্বকে এনে দেয় সতেজতা।
* ত্বক সুন্দর ও প্রাণবন্ত রাখতে সপ্তাহে দুই দিন মৃদু স্ক্রাব করতে পারেন। যাঁদের ত্বক স্বাভাবিক, তাঁরা টকদই, মধু ও চালের গুঁড়া একত্রে মিশিয়ে নিন। ত্বকে হালকা করে ঘষে নিয়ে কুসুম গরম পানিতে ত্বক ধুয়ে নিন।
* তৈলাক্ত ত্বক হলে মধু, লেবুর রস, ডিমের সাদা অংশ মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে পুরো মুখ ও গলায় লাগিয়ে ১৫ থেকে ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন।
* যাঁদের ত্বক শুষ্ক, তাঁরা টকদই, মধু, দুধ, চালের গুঁড়ার সঙ্গে কাঠবাদামের তেল ব্যবহার করতে পারেন। এতে শুষ্ক ভাব চলে গিয়ে ত্বকে উজ্জ্বলতা ফিরে আসবে।
* শুষ্ক ত্বকে ফেসপ্যাক হিসেবে দুধের সর, মধু, টমেটো, লাল আটার একটি পেস্ট তৈরি করে ১৫ থেকে ২০ মিনিট ত্বকে লাগিয়ে রাখুন। পরে ধুয়ে নিন। শুষ্ক ভাব চলে গিয়ে ত্বক মসৃণ ও কোমল হবে।
* তৈলাক্ত ত্বকে খানিকটা শসা, লাল আটা ও কাঁচা হলুদ মিশিয়ে ত্বকে লাগালে তৈলাক্ত ভাব চলে যাবে। যাঁদের ব্রণ আছে, তাঁরা একটু নিমপাতা লাগালে উপকার পাবেন।
এ ছাড়া রাতের বেলা হাত-পা ভালো করে ধুয়ে গ্লিসারিন, গোলাপজল ও অলিভ অয়েল সমপরিমাণ নিয়ে ভালো করে মিশিয়ে হাতে-পায়ে বা পুরো শরীরে লাগিয়ে ঘুমালে শুষ্ক ভাব আর থাকবে না। আর যাঁদের হাত-পা একটু বেশি শুষ্ক বা ফেটে গিয়েছে, তাঁরা পেট্রোলিয়াম জেলির সঙ্গে খানিকটা লোশন মিশিয়ে হাতে-পায়ে লাগাতে পারেন। রাহিমা সুলতানা জানান, সকালবেলা এক গ্লাস কুসুম গরম পানিতে এক চা-চামচ মধু আর আধা চা-চামচ লেবুর রস মিশিয়ে খেলে ত্বক সজীব থাকবে এবং উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি পাবে। ত্বক ভালো রাখতে শাকসবজি, স্যুপ বা পানি-জাতীয় খাবার প্রতিদিন খেতে হবে।

000

About Author

981 Responses Found

Leave a comment

Make sure you enter the (*) required information where indicated. HTML code is not allowed.

সম্পাদকঃ মীর আফরোজ জামান

সম্পাদকীয় কার্যালয়ঃ ৪৯ সোনারগাঁও জনপথ, সেক্টরঃ ৭, উত্তরা, ঢাকা-১২৩০, বাংলাদেশ।
ফোনঃ +৮৮-০২-৮৯৬৩৭৪৯, ফ্যাক্সঃ+৮৮-০২-৮৯৬৩৭৪৯
মোবাইলঃ ০১৭১৫৮১৯৩১৬
ইমেইল - banglarbanipratidin@gmail.com